আইফোন-১২ বাজারে আসছে খুব শীঘ্রই - বাংলা প্রযুক্তি ব্লগ

আইফোন-১২ বাজারে আসছে খুব শীঘ্রই

সকল জল্পনা কল্পনার অবসান ঘটিয়ে আইফোন-১২ বাজারে আসছে খুব শীঘ্রই।শোনা যাচ্ছে, ১২ অক্টোবর ফোনটি অবমুক্ত করা হবে এবং ১৮ অক্টোবর থেকে বাজারে কিনতে পাওয়া যাবে এটি।

২০১২ সাল থেকে সেপ্টেম্বর মাসের জন্য অপেক্ষায় থাকতো এপেল প্রেমীরা।কারন প্রতিবছর সেপ্টেম্বরে এপেল তাদের নতুন পন্য বাজারে ছাড়ে।

এন্ড্রোয়েড ফোনে বাংলা ভয়েস টাইপিং সুবিধা পেতে পড়ুনঃ-

আইফোন-১২ঃ-

প্রতি বছরের ন্যায় এবারও এপেল প্রেমীরা সেপ্টেম্বরে প্রতিক্ষায় ছিলো আইফোন-১২ নিয়ে কোন ঘোষনা আসে কি না সেজন্য।

কিন্তু করোনার কারনে পরিবর্তিত বিশ্ব পরিস্থিতির সামনে দাঁড়িয়ে এপেল কোম্পানী কিছুটা সময় নিলো।

অবশেষে সেপ্টেম্বরের পরিবর্তে এই অক্টোবরে এপেল তাদের আইফোনের সর্বশেষ ভার্সন আইফোন ১২ বাজারে ছাড়ার ঘোষনা দিলো।

আইফোন-১২

আইফোন-১২ সম্পর্কে আনুষ্ঠানিকভাবে বিশদ কিছু জানা না গেলেও দ্যা ভারজ, মার্কিন সাময়িকী ফোবরস এ প্রকাশিত প্রতিবেদন থেকে কিছুটা জানা যায়।

আরোও জানতে দেখুনঃ-

দ্যা ভারজ এর প্রতিবেদন

আইফোন-১২ তে কি থাকছেঃ-

কি কি থাকছে আইফোন ১২ তে।আসুন দেখে নেওয়া যাক।

নেটওয়ার্কঃ-

সবচেয়ে বড় আকর্ষণ হলো আইফোন ১২ তে থাকছে সর্বাধুনিক ৫ জি প্রযুক্তি। মোট ৪ টি সংস্করনের আইফোন ১২ বাজারে ছাড়া হবে।

সাইজঃ-

সংস্করন অনুযায়ী সাইজের ভিন্নতা থাকছে। যার মধ্যে ২ টি রেগুলার এবং ২ টি প্রো ভার্সন।

আইফোন ১২ নামে সংস্করনটির সাইজ হলো ৫.৪ ইঞ্চি।

এরপর থাকছে আইফোন ১২ ম্যাক্স, যার সাইজ হবে ৬.১ ইঞ্চি।

এরপরের ভার্সন টি হলো আইফোন ১২ প্রো, যার সাইজ হলো ৬.১ ইঞ্চি।

আর সর্বশেষ সংস্করনটি হলো আইফোন ১২-প্রো ম্যাক্স,যার সাইজ হবে ৬.৭ ইঞ্চি।

ক্যামেরাঃ-

শুধু সাইজেই নয় সংস্করন ভেদে ফোনের ক্যামেরা এবং ব্যাটারীতে পার্থক্য থাকবে।আইফোন-১২ তে ৩ টি ক্যামেরা সেট আপ থাকবে।

যার প্রাইমারী সেন্সর থাকবে ১৬ মেগা পিক্সেল হোয়াইট এংগেল ক্যামেরা।আইফোন-১২ ও আইফোন-১২ ম্যাক্স সংস্করনের ফোন দুটির পিছনে থাকবে ২ টি করে ক্যামেরা।

এছাড়াও আইফোন-১২ তে থাকবে টেলি ফটো ক্যামেরা।আইফোন ১২ প্রো ও আইফোন ১২ প্রো ম্যাক্স এর পিছনে থাকবে ৩ টি করে ক্যামেরা।

র‍্যাম/প্রসেসরঃ-

আইফোন ১২ ও আইফোন ১২ ম্যাক্স সংস্করনের ফোন ২ টি তে থাকবে ৪ জিবি র‍্যাম।আইফোন ১২ প্রো ও আইফোন ১২ প্রো ম্যাক্স ফন ২ টি তে থাকবে ৬ জিবি র‍্যাম।

এছাড়াও আইফোন-১২ এর সব সংস্করন গুলোতে ব্যবহার করা হয়েছে এ-১৪ বায়োনিক প্রসেসর।যা এর গতি ও কারয ক্ষমতার মধ্য সম্বনয় করবে।

বডিঃ-

আইফোন ১২ ও আইফোন ১২ ম্যাক্স এর বডি হবে স্টেইলনেস স্টীল এ তৈরি।

আর আইফোন ১২ প্রো ও আইফোন ১২ প্রো ম্যাক্স এর বডি হবে এলুমিনিয়ামের তৈরি।

ব্যাটারীঃ-

আইফোন ১২ ও আইফোন-১২ ম্যাক্স সংস্করন ২ টির ব্যাটারী থাকবে ২৭৭৫ এম এইচ ক্ষমতাসম্পন্ন।

আর আইফোন ১২ প্রো ম্যাক্স সংস্করন টির ব্যাটারী থাকবে ২৭৭৫ এম এইচ এবং আইফোন-১২ প্রো ম্যাক্স এ থাকবে ৩৬৮৭ এম এইচ ক্ষমতাসম্পন্ন ব্যাটারী।

আইফোন-১২ এর দামঃ-

আইফোন-১১ এর দাম ছিল ৬০ হাজার টাকা। সেই হিসাবে নতুন প্রযুক্তির ব্যবহার সত্ত্বেও আইফোন ১২ এর দাম খুব বেশী হবে না।

সংস্করন ভেদে ৬৪৯ ডলার থেকে শুরু করে ১০৯৯ ডলার দাম রাখা হতে পারে বলে প্রযুক্তি বিশেষজ্ঞদের ধারনা।

এন্ড্রোয়েড ফোনে লিনাক্স অপারেটিং সিস্টেম চালাতে পড়ুনঃ-

শেষকথাঃ-

তবুও যেন এপেল প্রেমীদের অপেক্ষার প্রহর শেষই হতে চাইছে না।তবে একটু দেরীতে হলেও আইফোন ১২ বাজারে আসছে খুব শীঘ্রই।

চলতি মাসেই ব্যবহারকারীদের হাতে দেখা যাবে আইফোন-১২।

2 thoughts on “আইফোন-১২ বাজারে আসছে খুব শীঘ্রই

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।